খেলাধুলা

রিয়াল ছাড়ছেন রোনালদো, কয়েক দিনের মধ্যে সিদ্ধান্ত!

উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের শিরোপা জিতেছে রিয়াল মাদ্রিদ। তবে শনিবার লিভারপুলের বিপক্ষে কিয়েভের ফাইনাল ম্যাচে তিনি ছিলেন নিষ্প্রভ। রোনালদোর হতাশাটা আড়াল করে দেন গ্যারেথ বেল। দ্বিতীয়ার্ধে ইস্কোর বদলি হিসেবে মাঠে নেমেই ওয়েলস সেনসেশন করেছেন জোড়া গোল। আর তাতেই ইউরোপিয়ান শীর্ষস্থানীয় টুর্নামেন্টের শিরোপা জয়ের হ্যাটট্রিক হয়ে যায় রিয়াল মাদ্রিদের।

কিন্তু দলের উৎসবমুখর রাতে রোনালদোর চোখে মুখে উচ্ছ্বাসটা অন্যদের তুলনায় একটু কমই ছিল।

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের জার্সিতে ছয় বছর ইংলিশ ফুটবল মাতিয়েছিলেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। অর্ধ যুগের ইংলিশ ফুটবল ক্যারিয়ার শেষে ২০০৯ সালে রিয়াল মাদ্রিদে চলে আসেন পর্তুগিজ উইঙ্গার। এই ক্লাবের হয়ে পেশাদার ক্যারিয়ারে সম্ভাব্য সবকিছুই জিতেছেন তিনি। নয় বছরের রিয়াল অধ্যায়ে দলের প্রধান খেলোয়াড় হিসেবেই ছিলেন রোনালদো। তার দুর্দান্ত পারফরম্যান্সের সুবাদে এই মৌসুমেও

ম্যাচ শেষে বোঝা গেল কারণটা। রিয়ালের প্রতি মন উঠে গেছে তার এমনটাও ধারণা করা হচ্ছিল। যা গুঞ্জনের দিকেই মোড় নিচ্ছিল। সেই গুজবের পালে হাওয়া দিলেন খোদ রোনালদো নিজেই। ক্যারিয়ারের পঞ্চম চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ের পর রিয়াল ছাড়ার ইঙ্গিত দিলেন পর্তুগাল অধিনায়ক।

রোনালদো বলেছেন, ‘এটা নিয়ে আমরা ভবিষ্যতে কথা বলব। আমি কয়েক দিনের মধ্যে সিদ্ধান্তটা জানিয়ে দেব। তবে রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে খেলতে পেরে খুব ভালো লাগছে। আপাতত সতীর্থদের সঙ্গে আমি এই মুহূর্তটা উপভোগ করছি। আমরা ইতিহাস তৈরি করেছি এটাই গুরুত্বপূর্ণ। এ জন্য আমি সমর্থকদের ধন্যবাদ জানাতে চাই।’

রোনালদো ক্লাব ছাড়ার আভাস দিয়েছেন- খবরটা পৌঁছে গেছে রিয়াল মাদ্রিদ প্রেসিডেন্ট ফ্লোরেন্তিনো পেরেজ, কোচ জিনেদিন জিদান এবং অধিনায়ক সার্জিও রামোসের কাছেও। তবে তিনজনই রোনালদোর ক্লাব ছাড়ার কথা উড়িয়ে দিয়েছেন। তাদের দাবি- আগামী মৌসুমেও মাদ্রিদে থাকবেন রোনালদো।