বিনোদন

৩০৮ গার্লফ্রেন্ডের সঙ্গে …

বিনোদন ডেস্ক: বিনোদন সংবাদে এরকম বোল্ড শিরোনাম দেয়াটা খুব কঠিন কাজ। আর বাস্তবে এই কাজটি করা সম্ভবত আরো অনেক বেশি কঠিন। কিন্তু সেই কাজটিই করেছেন বলিউড তারকা সঞ্জয় দত্ত।

তার জীবন বরাবরই খোলা খাতার মতো। প্রকাশ্যে তা স্বীকারও করেন তিনি সবসময়। ‘৩০৮ জন গার্লফ্রেন্ড ছিল আমার। আর সব মিলিয়ে ৩৫০ জনের সঙ্গে আমি সম্পর্ক করেছি’— এমন বিস্ফোরক ‘উক্তি’ সম্প্রতি করেছেন সঞ্জয় দত্ত!

তবে টুইস্ট হচ্ছে, খোদ সঞ্জয় নন, বরং সিনে পর্দায় এই উক্তি করেছেন সঞ্জয় রূপী রনবীর কাপুর।

৩০ মে মুক্তি পেয়েছে রাজকুমার হিরানি পরিচালিত ঈদ-পরবর্তী ছবি ‘সঞ্জু’র ট্রেলার। আদতে সঞ্জয় দত্তের এই বায়োপিকে নাম ভূমিকায় অভিনয় করছেন রনবীর কপূর। আর সেখানে রনবীরের মুখে রয়েছে এই ডায়লগ। অর্থাৎ বাস্তব জীবনে এই ঘটনা ঘটেছে খোদ সঞ্জয় দত্তর জীবনে। কারণ ছবিটি যে সঞ্জয় দত্তর জীবনের ঘটনা অবলম্বনে তৈরি তা বারবারই বলেছেন রাজকুমার। সঞ্জয়ের মাদক নেওয়া, অপরাধ জগতের সঙ্গে যুক্ত হওয়া, জেলযাত্রা, ব্যক্তিগত জীবনের টানাপোড়েন— সবই দেখানো হবে সিনে পর্দায়।

ট্রেলারে রণবীরকে দেখে প্রশংসায় ভরিয়ে দিয়েছেন বলিউড ইন্ডাস্ট্রি। সাধারণ দর্শকের কাছে রনবীরই হয়ে উঠেছেন সিনে পর্দায় সঞ্জয়। যার সঙ্গে নাকি বাস্তবের মানুষটির মিল এতটাই যে কেউ কেউ ভেবেছিলেন পর্দায় সঞ্জয় দত্তকেই দেখছেন। এমনকি রনবীরের বাবা ঋষি কাপুরও বলেছেন তিনি নাকি নিজের ছেলেকেই চিনতে পারেননি। তিনি ভেবেছিলেন এটা সঞ্জয় দত্ত!

তবে বলিউড পাড়ার একটা বড় অংশের মতে, রনবীরের অভিনয় দক্ষতা তো প্রমাণিত। কিন্তু এ ছবিতে জানা যাবে সঞ্জয়ের জীবনের অনেক গোপন কথা।

এই ছবিতে সঞ্জয়ের মা নার্গিসের ভূমিকায় রয়েছেন মণীষা কৈরালা। সঞ্জয়ের বাবা সুনীল দত্তের চরিত্রে দেখা যাবে পরেশ রাওয়ালকে। এ ছাড়াও সোনম কপূর, দিয়া মির্জা, আনুশকা শর্মার মতো শিল্পীর অভিনয় দেখার সুযোগ মিলবে এই ছবিতে।

২৯ জুন মুক্তি পাচ্ছে আলোচিত ‘সঞ্জু’।