ওজিলের তুর্কি শিকড় নিয়ে মাত্রাতিরিক্ত কিছু হয়েছে

Loading...

এবারের বিশ্বকাপে কোটি ভক্তকে কাঁদিয়ে গ্রুপ পর্ব থেকে বিদায় নেয় জার্মানি। আর তাতেই তোপের মুখে পড়েন জার্মান মিডফিল্ডার মেসুত ওজিল। এরইমধ্যে গত মাসে বর্ণবাদী দৃষ্টিভঙ্গি এবং অশ্রদ্ধার কথা উল্লেখ করে আন্তর্জাতিক ফুটবলকে বিদায় বলেন তিনি। তবে এবার ওজিলের পাশে দাঁড়ালেন তার সাবেক জাতীয় দল সতীর্থ এবং তারই মতো তুর্কি বংশোদ্ভূত গুনদোগান।

তিনি বলেন, ওজিলের তুর্কি শিকড় নিয়ে মাত্রাতিরিক্ত কিছু হয়েছে। জার্মানির একজন রাজনীতিবিদও বাজে মন্তব্য লিখে পোস্ট করেছিলেন। জার্মানির সব মানুষ হয়তো বর্ণবাদী নয়। তবে কিছু মানুষ বর্ণবাদকে নিজেদের হাতিয়ার মনে করে। ওজিলের ক্ষেত্রে সেটা সীমা ছাড়িয়েছিল।

ওজিল অবসর নিলেও গুনদোগান জার্মানির হয়ে খেলে যাবেন জানিয়ে বলেন, ‘ওজিলের অবসর জার্মান ফুটবলের জন্য বড় ক্ষতি। তিনি জার্মান ফুটবলকে অনেক কিছু দিয়েছেন। আমার ভালো বন্ধু ওজিল। আমার পথপ্রদর্শকও। তবে তিনি অবসর নিয়েছেন বলে আমিও অবসর নেব না।’

উল্লেখ্য, তুর্কি বংশোদ্ভূত দুই জার্মান ফুটবলার বিশ্বকাপের আগে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ানের সঙ্গে ছবি তোলেন। তা নিয়েই তীব্র সমালোচনা চলে জার্মান ফুটবল অঙ্গনে।

Be the first to comment on "ওজিলের তুর্কি শিকড় নিয়ে মাত্রাতিরিক্ত কিছু হয়েছে"

Leave a comment

Your email address will not be published.


*