খেলাধুলা

তিন নম্বর পজিশনে আশরাফুল!

স্পোর্টস ডেস্ক : ২০১৩ সালে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগের (বিপিএল) আসরে স্পট ফিক্সিংয়ের দায়ে সবধরনের ক্রিকেট থেকে ৮ বছরের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছিলেন মোহাম্মদ আশরাফুল। তবে পরে তা কমিয়ে ৫ বছরে আনা হয়। তবে নিষেধাজ্ঞা উঠার সাথে সাথে নতুন যুদ্ধে নামতে হচ্ছে আশরাফুলকে। জাতীয় দলে ফেরা, পারফরম্যান্স ঠিক রেখে লিগে খেলা এসব নিয়ে এগুতে হবে আশরাফুলকে।

আশরাফুল সুযোগের অপেক্ষায় আছেন। তাইতো তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ দল এখন যে আক্রমণাত্মক বা ইতিবাচক ক্রিকেট খেলে, ক্যারিয়ারের শুরুতে এভাবেই খেলেছি। আমি তো কখনো টুক টুক ব্যাটিং করিনি। ১৮ বছর আগেই যদি ইতিবাচক ক্রিকেট খেলি, এখন আমার কোনো সমস্যা হবে না। বিশ্বাস করি, এই দলে জায়গা করে নিতে পারব, যদি আমাকে সুযোগ দেওয়া হয়।’

নিজের পারফরম্যান্স নিয়ে তিনি বলেন, ‘এখন যদি কেউ ভাবে আমাকে নেবেই না, তাহলে তো সুযোগ পাওয়ার প্রশ্ন নেই। গত মৌসুমেও লিস্ট ‘এ’তে পাঁচটি সেঞ্চুরি করেছি। বাংলাদেশ দল অনেক ভালো খেলছে। কিন্তু ধারাবাহিক ভালো খেলছে কারা? পাঁচ সিনিয়র খেলোয়াড়। জুনিয়ররাও ভালো খেলোয়াড়। তবে আমি মনে করি, অভিজ্ঞতা দিয়ে দলে জায়গা করে নেওয়ার সামর্থ্য আমার আছে।’

এই তারকা সুযোগ পেলে তিন নম্বরে খেলতে চান। এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ‘আমি তিনে খেলেই ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে পাঁচটি সেঞ্চুরি করেছি। আর কে সুযোগ পাচ্ছে, কে পাচ্ছে না, সেটা আমার ভাবনার বিষয় নয়। সবকিছুই নির্ভর করছে পারফরম্যান্সের ওপর। এটিই সব ঠিক করে দেবে। আমার স্ট্রাইকরেটটা ৯০ থাকলে ভালো হতো(তার স্ট্রাইকরেট ছিল ৭৪.১৪)। উপযুক্ত সুযোগ-সুবিধা পেলে এই ১৫-১৬ ব্যবধান কমিয়ে ফেলতে পারব আশা করি। ধারাবাহিক ভালো খেললে একটা সুযোগ তো আসতেই পারে।’

এদিকে আঙ্গুলের ইঞ্জুরিতে দলে নেই সাকিব, আগামী তিন মাস তিনি দলে ফিরতে পারবেন কিনা সন্দেহ।তবে শোনা যাচ্ছে এখন না-কি অনেকটা সুস্থ অঙ্গুলের ইঞ্জুরি , বিসিবির কাছে আবেদন করেছেন টি-১০ লীগ খেলার জন্য। তবে সাকিব শুন্যতায় যে ভুগছে সেটা জিম্বাবুয়ে সিরিজের ১ম ম্যাচ দেখলেই ভাল্ভাবে বুজা যাচ্ছিল।একের পর এক খোচা মেরে আউট হয়ে প্যাভিলিওনে ফিরে যাওয়া এমনকি মুশফিক মাহমুদুল্লাহ ও।

অপরদিকে দলে অনুপস্থিত বাংলাদেশের সর্বকালের সেরা ওপেনার বাংলাদেশ ক্রিকেটের প্রাণ যাকে বলা চলে তামিম ইকবাল।অনিয়মিত পারফরমার লিটন দাস এক ম্যাচ ভাল খেলে তোহ অপর ম্যাচে কোন খোজ পাওয়া যায় নাহ।তামিমের পরিপূরক বাংলাদেশ দলে নেই বললেই চলে,দলের এই করূন অবস্থায় বাংলাদেশের পুরনো দিনের সেই মাঠ কাপানো খেলোয়ার আশরাফুলকেই দলে দেখতে চায় সবাই।