খেলাধুলা

বিপিএল কাঁপাতে এই দুইজন ছক্কার নায়ক খেলবেন দলের হয়ে

বিপিএল কাঁপাতে এই দুইজন ছক্কার নায়ক একই দলে। তারা মাশরাফি ও গেইল। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগে (বিপিএল) মুশফিকুর রহীমের নতুন ঠিকানা চিটাগং ভাইকিংস। গতকাল প্লেয়ার ড্রাফট শুরুর আগে চমক দেখায় ফ্র্যাঞ্চাইজিটি। এবার মুশফিককে ছেড়ে দেয় রাজশাহী কিংস। সে হিসেবে প্লেয়ার ড্রাফটে মুশফিকের নাম থাকার কথা ছিল।

কিন্তু সেই সুযোগ দেয়নি চিটাগং ভাইকিংস। আইকন খেলোয়াড় হিসেবে বাংলাদেশ দলের এই অভিজ্ঞ উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যানকে দলে ভেড়ায় তারা। গতকাল দুপুরে রাজধানীর একটি হোটেলে অনুষ্ঠিত হয় বিপিএলের ষষ্ঠ আসরের প্লেয়ার ড্রাফট। ৭ ফ্র্যাঞ্চাইজি, তাদের আইকন ও কর্মকর্তারা এতে অংশ নেন।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন, বিসিবি ও আইসিসির সাবেক সভাপতি পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মোস্তফা কামাল, পররাষ্ট্রমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম প্লেয়ার ড্রাফটে উপস্থিত থাকেন। এবার প্লেয়ার ড্রাফটের আগে চারজন করে ক্রিকেটার ধরে রাখার সুযোগ পায় ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো।

এছাড়াও দুইজন বিদেশি খেলোয়াড়ের সঙ্গে চুক্তি করার সুযোগ দেয়া হয়। অর্থাৎ, প্লেয়ার ড্রাফটের আগেই ৬ জন করে খেলোয়াড় দলে রাখতে পারে দলগুলো। এবার আইকন খেলোয়াড়দের মধ্যে বাদ ছিলেন কেবল মুশফিক। তাকে ‘রিটেইন’ খেলোয়াড় হিসেবে নেয়ার আবেদন করে চিটাগং ভাইকিংস। দলটির ‘এ প্লাস’ ক্যাটাগরি তালিকায় কোনো খেলোয়াড় ছিল না। ড্রাফট শুরুর আগে এই আবেদন অনুমোদন করে বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল।

নতুন ‘আইকন’ হিসেবে লিটন কুমার দাসকে বেছে নেয় সিলেট সিক্সার্স। আর রাজশাহী কিংসের আইকন মোস্তাফিজুর রহমান। আগের দলেই থাকছেন মাশরাফি বিন মুর্তজা (রংপুর রাইডার্স), সাকিব আল হাসান (ঢাকা ডায়নামাইটস), তামিম ইকবাল (কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স) ও মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ (খুলনা টাইটান্স)। বিপিএলের সর্বোচ্চ রানসংগ্রহকারীর তালিকায় শীর্ষ চারে রয়েছেন বাংলাদেশ দলের চার ব্যাটিং স্তম্ভ সাকিব-তামিম-মুশফিক-মাহমুদুল্লাহ।

৬৩ ম্যাচে ১৪০০ রান নিয়ে শীর্ষে মাহমুদুল্লাহ। ব্যাটিং গড় ২৭.৪৫। স্ট্রাইক রেট ১১৫.৬০। ফিফটি ৭টি। সর্বোচ্চ ইনিংস ৬২ রানের। ৪৪ ম্যাচে ১৩৫৮ রান নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে ওপেনার তামিম। ব্যাটিং গড় ৩৪.৮২। স্ট্রাইক রেট ১২০.৭১। ফিফটি ১৪টি। সেরা ইনিংস ৭৫ রানের। তামিমের চেয়ে ১ রান পিছিয়ে তৃতীয় সর্বোচ্চ রানসংগ্রাহক মুশফিক। ৫৮ ম্যাচে ৩২.৩০ গড়ে ১৩৫৭ রান করেন মি. ডিপেন্ডেবল। স্ট্রাইকর রেট ১২৮.২৬।

৮ ফিফটির সর্বোচ্চ স্কোর ৮৬ রান। সাকিবের ব্যাট থেকে আসে ৬১ ম্যাচে ১১৮২ রান। ব্যাটিং গড় ২৬.২৬। স্ট্রাইক রেট ১৩৪.১৬। ফিফটি ৩টি। সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত ইনিংস অপরাজিত ৮৬। তালিকার পাঁচে ইমরুল কায়েস। ৫৪ ম্যাচে ১১৪৯ রান করেন এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান। চার ফিফটিতে তার সর্বোচ্চ ইনিংস ৬৭ রান। ব্যাটিং গড় ২২.৯৮। স্ট্রাইক রেট ১১১.৯৮।
কে কোন দলে

রংপুর রাইডার্স
মাশরাফি বিন মুর্তজা, ক্রিস গেইল, নাজমুল ইসলাম অপু, মোহাম্মদ মিঠুন, এবি ডি ভিলিয়ার্স, অ্যালেক্স হেলস, শফিউল ইসলাম, সোহাগ গাজী, ফরহাদ রেজা, মেহেদি মারুফ, রবি বোপারা, রাইলি রুসো, নাহিদুল ইসলাম, নাদিফ চৌধুরী, আবুল হাসান রাজু, ফারদিন হোসেন অনি, বেনি হাওয়েল, ওশান থমাস।

ঢাকা ডায়নামাইটস
সাকিব আল হাসান, সুনীল নারাইন, রভম্যান পাওয়েল, কাইরন পোলার্ড, আন্দ্রে রাসেল, হজরতউল্লাহ জাজাই, শুভাগত হোম চৌধুরী, রনি তালুকদার, নুরুল হাসান সোহান, রুবেল হোসেন, অ্যান্ড্রু বার্জ, ইয়ান বেল, কাজী অনিক, মিজানুর রহমান, আসিফ হাসান, শাহাদাত হোসেন রাজীব, নাইম শেখ।

রাজশাহী কিংস
মুমিনুল হক, মেহেদি হাসান মিরাজ, মোস্তাফিজুর রহমান, জাকির হাসান, কায়েস আহমেদ, ক্রিস্টিয়ান জাঙ্কার, আলাউদ্দিন বাবু, আরাফাত সানি, ফজলে রাব্বি মাহমুদ, সৌম্য সরকার, ইসুরু উদানা, লরি ইভেনস, মার্শাল আইয়ুব, কামরুল ইসলাম রাব্বি, রায়ান টেন ডেসকাটা, সেকুগে প্রসন্ন, মোহাম্মদ সামি।

সিলেট সিক্সার্স
নাসির হোসেন, সাব্বির রহমান, লিটন কুমার দাস, সোহেল তানভির, ডেভিড ওয়ার্নার, সন্দীপ লামিচান, আফিফ হোসেন ধ্রুব, তাসকিন আহমেদ, মোহাম্মদ আল আমিন হোসেন, তৌহিদ হৃদয়, ফ্যাবিয়ান অ্যালেন, মোহাম্মদ ইরফান, নাবিল সামাদ, ইবাদত হোসেন, অলক কাপালি, জাকির আলী, গুলবাদিন নায়েব, আন্দ্রে ফ্লেচার, মেহেদি হাসান রানা, প্যাট ব্রাউন, নিকোলাস পুরান।

খুলনা টাইটান্স
মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, আরিফুল হক, নাজমুল হোসেন শান্ত, কার্লোস ব্রাথওয়েট, ডেভিড মালান, আলী খান, মোহাম্মদ আল আমিন, তাইজুল ইসলাম, শরিফুল ইসলাম, জহুরুল ইসলাম অমি, জহির খান, শেলফেন রাদারফোর্ড, শুভাশিষ রায়, জুনায়েদ সিদ্দিকী, তানভীর ইসলাম, মাহিদুল ইসলাম অঙ্কন, লাসিথ মালিঙ্গা, ইয়াসির শাহ, ব্রেন্ডন টেইলর।

কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স
তামিম ইকবাল, ইমরুল কায়েস, মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন, শোয়েব মালিক, আসেলা গুনারত্নে, লিয়াম ডসন, আবু হায়দার রনি, এনামুল হক বিজয়, মেহেদি হাসান, জিয়াউর রহমান, শহীদ আফ্রিদি, থিসারা পেরেরা, মোশরারফ হোসেন রুবেল, মোহাম্মদ শহীদ, শামসুর রহমান শুভ, সঞ্জিত সাহা, এভিন লুইস, ওয়াকার, আমের ইয়ামিন।

চিটাগং ভাইকিংসসিকান্দার রাজা,

লুক রনকি, মুশফিকুর রহীম, নজিবুল্লাহ জাদরান, সানজামুল ইসলাম, রবি ফ্রাইলিংক, নাঈম হাসান, সৈয়দ খালেদ, আবু জায়েদ রাহি, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, ক্যামেরন ডেলপোর্ট, দাসুন সানাকা, মোহাম্মদ আশরাফুল, রবিউল হক, ইয়াসির আলী, নিহাদুজ্জামান, সাদমান ইসলাম।