খেলাধুলা

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে হোম সিরিজে মাঠে নামছেন সাকিব

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে বাংলাদেশের হোম সিরিজ এ দলে ফিরছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজে মাঠে নামছেন তিনি এমনটাই দেশের একটি টিভি চ্যানেলের দেওয়া সাক্ষাৎকারে বলেছেন সাকিব।

ক্যারিয়ারের চূড়ান্ত ঝুঁকি নিয়েও, আফগানিস্তান ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজের পর খেলেছেন এশিয়া কাপেও। শেষ পর্যন্ত ইনজুরির কাছে পরাজিত হয়ে হাসপাতালে যেতে হয়েছে। সেখানেও একাধীক ইনজেকশন নিতে হয়েছে। কেউ ছিলেন না সাকিবের পাশে। কেউ বুঝেনি সাকিবের ব্যথা। বুঝেছে অবুঝ সন্তান আলাইনা। হাসপাতালে চিকিৎসকে বারবার বারণ করেছে আলাইনা। যেন তার বাবাকে ইনজেকশন না দিতে পারেন কেউ।

‘ও সব থেকে ক্লোজ আমার সঙ্গে। তাই স্বাভাবিকভাবে আমি যদি কোন ব্যথা পাই বা আমার কোন জায়াগায় ব্যান্ডেজ থাকে তাহলে ও বলে যে, তুমি এখানে ব্যথা পাচ্ছ? ও ওখানে আদর করে দেয়। কাউকে ওই জায়গায় ধরতে দেয় না। যখন ডাক্তাররা আসে কিংবা ইনজেকশন নিয়ে আসে তখন আলাইনা রিয়্যাক্ট করেছে। এটা আসলে বাবা-মেয়ের ভালবাসার নিদর্শন বলবো।’ বলছিলেন বাবা সাকিব আল হাসান।

তবে স্বস্তির খবর অনেকটাই সুস্থ হয়ে উঠেছেন সাকিব। সব ঠিক থাকলে, নভেম্বরেই ফিরবেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে হোম সিরিজে।

‘হাত এখন আগের থেকে অনেক ভালো। ইনজুরি হওয়ার পর থেকে বোধহয় এখনই সবথেকে ভালো ফিল করছি। ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ হয়তো পুরোটাই খেলতে পারি, হয়তো কিছু খেলতে পারি।’

তামিম-সাকিব ছাড়া বাংলাদেশ দল বেমানান। ব্যাপারটি মানছেন না সাকিব। বরং জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দলের পারফরম্যান্সে মুগ্ধ তিনি।

‘বাংলাদেশ টিমের ওই ক্যাপাবিলিটি আছে যে, একজন, দুই জন বা তিনজন ক্রিকেটার না থাকলেও ভালো রেজাল্ট করতে পারে। সেটা তো এখন প্রমাণিত।’ বলছিলেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার।