জাতীয় রাজনীতি

হাজী সেলিম নৌকার টিকেট পেয়ে বাকশক্তি ফিরে পেলেন

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন পেয়েছে দীর্ঘদিন অসুস্থ থাকা হাজী সেলিম। ঢাকা-৭ আসন থেকে মনোনয়ন পেয়েছেন তিনি।

এদিকে, দলীয় মনোনয়ন পেয়ে বাকশক্তি ফিরে পেয়েছেন তিনি। শুধু তাই নয় দলের মনোনয়ন পাওয়ার পর বেশ উজ্জীবিতও দেখা গেছে দীর্ঘদিন অসুস্থ থাকা হাজী সেলিমকে।

ঢাকা-৭ আসনের সংসদ সদস্য হাজী সেলিম ২০১৬ সালে স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে বাকশক্তি হারিয়ে ফেলেন। তবে সম্প্রতি হারানো বাকশক্তি ফিরে পেয়েছেন তিনি। দশম সংসদ নির্বাচনে নিজ দল আওয়ামী লীগের মনোনয়ন না পেয়ে নির্বাচন করেন স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে।

ওই নির্বাচনে জয় লাভও করেন তিনি। তবে গতবার বঞ্চিত হলেও এবার দলের মনোনয়ন পেয়ে কর্মী-সমর্থকদের সঙ্গে কথা বলা শুরু করেছেন এ সংসদ সদস্য।

দলের নোনয়ন লাভের পর এলাকায় গণসংযোগ শুরু করেছেন তিনি। সবার সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময়কালে অল্পস্বল্প কথাও বলছেন তিনি। তবে বিস্তারিত কথা বলার প্রয়োজন পড়লে সহযোগীর সহায়তা নিচ্ছেন তাকে।

দলের মনোনয়ন পাওয়ার পর বেশ উজ্জীবিত নেতাকর্মীদের নিয়ে তা উদযাপনও করেন তিনি। দীর্ঘদিন অসুস্থ থাকা হাজী সেলিম এ সময় বেশ নেচেছিলেনও, যার ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

তার বড় ছেলে সোলায়মান সেলিম জানান, মনোনয়ন পাওয়ার পর হাজী সেলিমের বেশ উজ্জীবিত হতে দেখা গেছে।

সোলায়মান সেলিম বলেন, ‘আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন পেয়ে উজ্জীবিত হয়ে উঠেছেন বাবা। এলাকায় গণসংযোগ শুরু করেছেন। মানুষের সঙ্গে কথা বলছেন। গণমানুষের সুখ-দুঃখের খোঁজখবর নিচ্ছেন। এলাকায় জনপ্রিয়তার কারণে আওয়ামী লীগের তিন দফা জরিপে বাবা এগিয়ে ছিলেন। আগামী নির্বাচনে জয়লাভ করে ঢাকা-৭ আসনটি জননেত্রী শেখ হাসিনাকে উপহার দেবেন তিনি।’

উল্লেখ্য, মদিনা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হাজী সেলিম ২০১৬ সালের মাঝামাঝিতে স্ট্রোকজনিত সমস্যায় মারাত্মক অসুস্থ হয়ে পড়েন। এরপর সিঙ্গাপুরে চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি। সেখান চিকিৎসা শেষে গত বছর দেশে ফেরেন। চিকিৎসা শেষে দেশে ফিরলেও দৈনন্দিন কর্মকাণ্ড, ব্যবসা-বাণিজ্য, রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড, পারিবারিক ও সামাজিক সব ধরনের কর্মকাণ্ড পরিচালনা করতেন ইশারা-ইঙ্গিতে। এতে তাকে সহায়তা করতেন তার স্ত্রী গুলশান আরা বেগম ও বড় ছেলে সোলায়মান সেলিম।