খেলাধুলা

ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজে ৪০ উইকেট স্পিনাররা নিয়ে নতুন রেকর্ড বাংলাদেশের

বাংলাদেশের স্পিন বোলিং অ্যাটাক যে কতটা ভয়ংকর সেটা হাড়ে হাড়ে টের পেল ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দল। দুই টেস্টে বাংলাদেশ দলে ছিল চারজন করে স্পিন বলার। সিরিজ শেষে সেই চার স্পিনারের সৌজন্যেই বাংলাদেশের নাম লেখা হয়ে গেল টেস্ট ইতিহাসে।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে দুই ম্যাচে ৪০টি উইকেটই নিয়েছেন বাংলাদেশের স্পিনাররা। দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজে প্রতিপক্ষের সবকটি উইকেটই স্পিনারদের শিকার টেস্ট ইতিহাসে এটিই প্রথম।

দুই ম্যাচের সিরিজে স্পিনারদের আগের সবচেয়ে বেশি উইকেটের রেকর্ডও ছিল বাংলাদেশের। ২০১৬ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ থেকে দেশের মাটিতে টার্নিং উইকেট বানিয়ে টেস্ট জয়ের কৌশল নিয়েছে বাংলাদেশ। সেই সিরিজে বাংলাদেশের স্পিনাররা নিয়েছিল ৩৮ উইকেট।

সেবার দ্বিতীয় টেস্টে মিরপুরে ২০টি উইকেটই ছিল স্পিনারদের। চট্টগ্রামে প্রথম টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে কেবল দুটি উইকেট নিতে পারেননি স্পিনাররা। সেবার জনি বেয়ারস্টো বোল্ড হয়েছিলেন পেসার কামরুল ইসলাম রাব্বির বলে। পরে রান আউট হয়েছিলেন স্টুয়ার্ট ব্রড।

এবার ৪০ উইকেট ভাগাভাগি করে নিয়েছেন ৪ স্পিনার। প্রথম টেস্টে মেহেদী হাসান মিরাজ নিয়েছিলেন ৩ উইকেট। দ্বিতীয় টেস্টে ১২ উইকেট নিয়ে মিরাজ সিরিজ শেষ করেছেন সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি হয়ে। নিয়েছেন মোট ১৫ উইকেট। বাঁহাতি স্পিনার তাইজুল ইসলাম নিয়েছেন ১০টি। অধিনায়ক ও আরেক বাঁহাতি স্পিনার সাকিব আল হাসানের শিকার ৯ উইকেট। স্পিন চতুষ্টয়ের নবীনতম নাঈম হাসান নিয়েছেন ৬ উইকেট।