Notunshokal.com
রাজনীতি

মনোনয়ন না পেয়ে সরকারের উদ্দেশে যা বললেন কাদের সিদ্দিকী

আগামী ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন। এদিকে নির্বাচন উপলক্ষে আজ রবিবার (২ ডিসেম্বর) সারাদেশ ব্যাপী শুরু হয়েছে প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই। জানা গেছে যাচাই-বাছাই শেষে আগামী ৯ ডিসেম্বর চূড়ান্ত প্রার্থীর নাম ঘোষণা করা হবে।

এদিকে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কৃষক-শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি কাদের সিদ্দিকীর টাঙ্গাইল-৪ (কালিহাতি) আসনের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। আজ মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ের সময় জেলার রিটার্নিং কর্মকর্তা জেলা প্রশাসক মো. শহিদুল ইসলাম তার মনোনয়নপত্রটি বাতিল ঘোষণা করেন।

এদিকে আজ দুপুরে কাদের সিদ্দিকীর মনোনয়নপত্র বাতিল করা হলে জেলা রিটার্নিং অফিসারের কক্ষ থেকে বের হয় তিনি সাংবাদিকদের কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম নেতা কাদের সিদ্দিকী বীর উত্তম বলেন, যতক্ষণ পর্যন্ত আমার বোন সরকার থাকবেন, ততক্ষণ পর্যন্ত আমাকে মনে হয় ইলেকশন করতে দেয়া হবে না। এ জন্য আমি খুশি। প্রতিদ্বন্দ্বী সর্বোচ্চ চেষ্টা করবে বলে এটাই আমি আশা করছি।

তিনি আরও বলেন, আমার নির্বাচনে দাঁড়ানোটা বড় কথা নয়। আমি চাই নির্বাচনটা ভালো হোক। আমার সংগ্রাম হচ্ছে ভোটার যেন ভোট দিতে পারে। দেশে যেন গণতন্ত্র অব্যাহত থাকে, দেশে যেন সুশাসন থাকে, এখন যে কুশাসন চলছে এই শাসন ভালো না।

তিনি বলেন: যদি আমার দেশপ্রেম সত্য হয়, আমি সারাজীবন আল্লাহ ও রাসুলের ওপর যে বিশ্বাস করে এসেছি, সে বিশ্বাস যদি বিন্দু মাত্র সত্য হয়, তা হলে ১৯ থেকে ২০টির বেশি সিট পাবে না বর্তমান সরকার।

এসময় মনোনয়নপত্র বাতিলের বিষয়ে তিনি বলেন: আমি ইলেকশন কমিশনে আপিল করব। আমরা যখন ইলেকশন কমিশনে গিয়েছিলাম, তখন তারা বলেছিলেন ইলেকশন কমিশন কখনও কোর্টে বাদি হবেন না। আমি এটিই দেখার জন্যই ইলেকশন কমিশনে যাব।

তিনি আরও বলেন: আমি যাচাই-বাছাই দীর্ঘ সময় দেখেছি, আমার কাছে ভালো লেগেছে। আমার মনে হয় রির্টানিং অফিসার হিসেবে তিনি নিরপেক্ষভাবে কাজ করতে পারবেন, সরকারের পা চাটা হবে না।

আরও পড়ুন

হেলমেট পরিহিত সেই যুবক আটক

হিরো আলমের মনোনয়নপত্র আপিলেও বাতিল

Syed Hasibul

হিরো আলমের নির্বাচন করতে আর কোন বাধা থাকল না

Syed Hasibul