ধর্ম

গুনাহ থেকে বাঁচবেন মাত্র দুইটি অভ্যাসে

আল্লাহ্‌র নির্দেশের পরিপন্থী হয় এমন সকল কাজকেই মুসলিমরা গুনাহ হিসেবে বিবেচনা করে, কিয়ামতের দিন আল্লাহ্‌ প্রতিটি মানুষের ভালো ও মন্দ কাজ গুলোকে পরিমাপ করবেন এবং মন্দ কাজের জন্য তাদেরকে শাস্তি প্রদান করবেন। কথাবার্তার ক্ষেত্রে অভ্যাস হিসেবে রপ্ত করতে পারলে অর্ধেকের বেশি গুনাহ থেকে নিজেকে মুক্ত রাখা সম্ভব।

যে অভ্যাস গড়ুন:

১। প্রয়োজন ব্যতীত তৃতীয় ব্যক্তিকে নিয়ে কোনো কথা না বলা
তৃতীয় ব্যক্তিকে নিয়ে ভালমন্দ কোনো কথাই না বলা। কথা যতো কম হবে গীবত ততো কম হবে। আর যার ভিতর গীবত কম, তার অন্তরে মুসলিমদের প্রতি হিংসা-বিদ্বেষ স্থান নিতে পারে না।

২। প্রতিটি কথার আগে একটু ভেবে নেয়া, তওবা
প্রতিটি কথা উচ্চারণের আগে একটু ভেবে নেয়া,‘এই কথা বলার দ্বারা আমার দ্বীনি অথবা দুনিয়াবি ফায়দা কী?’ অহেতুক কথা অন্তরকে শক্ত করে দেয়। তাই কথা হিসেব করে বলার অভ্যাস গড়তে পারলে জবানের ওপর লাগাম পড়বে। পাশাপাশি সর্বক্ষণ মোরাকাবার দরুন আল্লাহর জিকিরের সাওয়াবও পাওয়া যাবে। প্রত্যেক আদম সন্তানই পাপ করে, পাপীদের মধ্যে তারাই সর্বোত্তম যারা তওবা করে। — সুনানে তিরমিযী, হাদীস নং- ২৪৯৯[৫]

গুনাহ হল এমন সকল কাজ যেগুলো থেকে বিরত থাকার জন্য ইসলাম শিক্ষা দেয়। কথাবার্তার ক্ষেত্রে অভ্যাস হিসেবে রপ্ত করতে পারলে অর্ধেকের বেশি গুনাহ থেকে নিজেকে মুক্ত রাখা সম্ভব।