বিনোদন

আকাশছোঁয়া দাম পেলেন ছেলে,মা ক্যান্সার আক্রান্ত

মা ক্যান্সারআক্রান্ত থাকলেও আকাশছোঁয়া দাম পেলেন ছেলে। আর তাকেই দলে নিলেন শাহরুখের দল কেকেআর। এবারের আইপিএলে শাহরুখের দল তাকে দলে ভেড়ায় ৫ কোটি রুপিতেই।

তিনি কার্লোস ব্র্যাথওয়েট। তাকে পেতে ঝাঁপিয়েছিল কেকেআর। তার দাম ছিল ৭৫ লাখ টাকা। নিলামে শাহরুখ খানের দল ব্র্যাথওয়েটকে তুলে নিল আকাশছোঁয়া অর্থের বিনিময়ে। কত দামে কেনা হলো ব্র্যাথওয়েটকে? ৫ কোটি টাকার বিনিময়ে ওয়েস্ট ইন্ডিয়ান অলরাউন্ডার এলেন কলকাতায়। তিনি হয়ে গেলেন নতুন নাইট।

২০১১ সালে ঘরোয়া ক্রিকেটে বার্বেডোজের হয়ে একের পর এক নজরকাড়া পারফরম্যান্স করেন ছ’ফিট চার ইঞ্চির ক্যারিবিয়ান অলরাউন্ডার। যার মধ্যে ত্রিনিদাদ ও টোব্যাগোর বিরুদ্ধে তার সাত উইকেটের বোলিং স্পেল নিয়ে হইচই পড়ে গিয়েছিল। বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ওয়ান ডে ও টি টোয়েন্টি সিরিজে ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে কার্যত ‘অটোমেটিক চয়েস’ হিসেবে প্রথমবার দলে প্রবেশ করেন ব্র্যাথওয়েট। জীবনের প্রথম আন্তর্জাতিক সিরিজ খেলতে ঢাকায় পৌঁছেই মা জয়েসলিনের ফোন পেলেন ব্র্যাথওয়েট। ছেলেকে জয়েসলিন জানান যে, কাঁধের নীচে ব্যথায় কাতর তিনি। মা’কে চিকিৎসার পরামর্শ নেয়ার কথা বলেন ব্র্যাথওয়েট।

কিন্তু সিরিজ চলাকালীন ব্রেথওয়েট যে খবরটা পেলেন, সেটার জন্য হয়তো তিনি মানসিকভাবে তৈরি ছিলেন না। বার্বেডোজ থেকে ফোনে মা তাকে জানালেন যে, স্তন ক্যানসারে আক্রান্ত তিনি। মুহূর্তের মধ্যে ব্র্যাথওয়েটের জগত বদলে গিয়েছিল। দেশে ফেরার পর তার একমাত্র ধ্যান-জ্ঞান মা’র চিকিৎসা। কেমোথেরাপির যন্ত্রণায় মা’র মুখ বিকৃত হয়ে যাওয়া ভুলতে পারেন না ব্র্যাথওয়েট। তবু জয়েসলিন উৎসাহ জুগিয়ে গিয়েছেন ছেলেকে। ব্র্যাথওয়েট একবার বলেছিলেন, মা’র ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ার খবর শুনে কাঁদতাম। খুব দুশ্চিন্তা হতো। তবে আমার চেয়ে মা মানসিকভাবে অনেক শক্তপোক্ত। ওইরকম সময়েও আমার সঙ্গে হেসে কথা বলতেন। ক্রিকেট খেলায় উৎসাহ দিতেন।

আর ক্যান্সার আক্রান্ত মায়ের চুল ফেলে দিতে হয়েছিলো বলেই ব্র্যাথওয়েটও ফেলে দিয়েছিলেন তার চুল। এখন দেখার বিষয় আইপিএলে কেমন পারফর্ম করেন তিনি।