খেলাধুলা

নিজের জন্য বড় সুযোগ দেখছেন সৌম্য সরকার

স্পোর্টস ডেস্ক: দুইদিন পরেই শুরু হবে আফগানিস্তান ও বাংলাদেশ মধ্যকার তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজ। আফগানিস্তানের বিপক্ষে খেলার জন্য গতকালই দলের সঙ্গে যোগ দিয়েছেন অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। এর আগে সাকিবকে ছাড়াই ভারতের দেরাদুনে পৌঁছেছে দলের বাকি সদস্যরা। দেরাদুনে পৌঁছানোর পরেরদিনই প্রস্তুতি শুরু করেছেন আফগানিস্তান সিরিজের জন্য।

প্রস্তুতি নিয়ে কোন আপোষ করছেন না ক্রিকেটাররা। মূল সিরিজের আগে আফগানিস্তানের একটি দ্বিতীয় সারির দলের সঙ্গে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলার কথা রয়েছে বাংলাদেশের। সেই ম্যাচে খেলার কথা রয়েছে বেশ কয়েকজন আফগানিস্তানের জাতীয় দলের ক্রিকেটারের। এর আগে এই মাঠে খেলেনি দুই দলের কেউই।

তাই প্রস্তুতি ম্যাচ বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটারদের জন্য মূল সিরিজের আগে আত্মবিশ্বাস দিবে। সেই আত্মবিশ্বাসের কথাই বলেছেন দলের ওপেনার সৌম্য সরকার। বাকিদের মত এই ম্যাচকে গুরুত্বর সঙ্গেই দেখছেন এই ওপেনার। প্রস্তুতি ম্যাচ মূল সিরিজের আগে তার কাজে আসবে মনে করছেন তিনি। সেই সাথে এই প্রস্তুতি ম্যাচের মাধ্যমে হারানো আত্মবিশ্বাস ফিরে পাবে আশা করছেন তিনি।

‘যদি তাদের মূল বোলাররা অনুশীলন ম্যাচটা খেলে, তবে তাদের দল সম্পর্কে একটা ধারণা পেতে সহায়তা করবে আমাদের। ব্যক্তিগতভাবে সিরিজটা আমার জন্য গুরুত্বপূর্ণ। যেখানেই খেলি ভালো খেলতে চাই। চেষ্টা করব নিজেকে মেলে ধরতে, যেন নিজের আত্মবিশ্বাসটা বাড়াতে পারি।’

দুই দলের মধ্যকার সিরিজটি আরম্ভ হবে আগামী ৩ জুন দেরাদুনের রাজীব গান্ধী স্টেডিয়ামে। দলের সব ক্রিকেটাররা দেরাদুনে থাকলেও আজ দলের সঙ্গে যোগ দেওয়ার কথা রয়েছে ওপেনার তামিম ইকবালের। লর্ডসে উইন্ডিজের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি ম্যাচের জন্য দলের সঙ্গে যেতে পারেননি এই ওপেনার। এছাড়াও এই সিরিজে তামিমের ওপেনিং সঙ্গী কে হবেন সেটি নিয়েও রয়েছে প্রশ্ন।

নিদাহাস ট্রফিতে ব্যাট হাতে জ্বলে উঠতে ব্যর্থ হয়েছিলেন সৌম্য সরকার। অন্যদিকে মোটামুটি সফল ছিলেন লিটন দাস। তামিমের সঙ্গে ওপেনিং করেছেন বেশ কয়েকটি ম্যাচ। আফগানিস্তানের বিপক্ষে তামিমের সঙ্গে লিটনকে দেখা গেলে সৌম্যকে হয়ত দেখা যাবে মিডল অর্ডারে।

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

Privacy & Cookies Policy