খেলাধুলা

অাফগানিস্থানকে কাছে হেরে এশিয়া কাপ থেকে বিদায় নিল শ্রীলঙ্কা। ১ ম্যাচ হাতে রেখেই সুপার ফোরে বাংলাদেশ অাফগানিস্থান।

৩ দিনে শেষ হয়ে গেল শ্রীলঙ্কা এশিয়া কাপ। এশিয়া কাপের পাঁচবারের চ্যাম্পিয়নদের ৯২ রানে হারিয়ে বিদায় করে দিল আফগানিস্তান। আর শ্রীলংকার বিদায় করে এক ম্যাচ হাতে রেখেই সুপার ফোর রাউন্ড নিশ্চিত করল বাংলাদেশ এবং আফগানিস্তান।

আবুধাবিতে শ্রীলংকার বিপক্ষে টসে জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে ২৪৯ রান সংগ্রহদ করে আফগানিস্তান। ব্যাটিংয়ে নেমে ওপেনিং জুটিটা দারুণ শুরু করে আফগানিস্তান। প্রথম উইকেট জুটিতে ৫৭ রান তুলে ওপেনার মোহাম্মদ শেহজাদ ৩৪ রান করে লঙ্কান বোলার ধনঞ্জয়া ডি সিলভার বলে লেগ বিফোর হয়ে ফিরে গেলেও আরেক ওপেনার ইহসানুল্লাহকে সঙ্গে নিয়ে ইনিংস টেনে নেন রহমত শাহ। এই দুজনের জুটিতে আসে ৫০ রান।

দলীয় ১০৭ রানে ধনঞ্জয়ার দ্বিতীয় শিকার হয়ে ফেরেন ইহসানুল্লাহ। তিনি করেন ৪৫ রান। দলীয় ১১০ রানে বিদায় নেন অধিনায়ক আসঘার আফগানও। তবে এরপর আবার হাশমাতুল্লাহকে সঙ্গে কার্যকর জুটি গড়েন রহমত শাহ। দলীয় ১৯০ রানে চামিরার বলে থিসারা পেরেরার ক্যাচে পরিণত হয়ে ফেরেন রহমত। ৭২ রান করে প্যাভিলিয়নে ফেরেন তিনি। এরপর দলীয় ২০৩ রানের মাথায় হাশমতুল্লাহ থিসারা পেরারার প্রথম শিকারে পরিণত হলে বিপদে পড়ে যায় আফগানিস্তান।

২০৩ থেকে স্কোর ২২৭ পর্যন্ত পৌঁছাতেই আরও ২ উইকেট হারায় আফগানিস্তান। এরমধ্যে মোহাম্মদ নবীর ১৫ রানে উইকেট তুলে নেন মালিঙ্গা আর নজিবুল্লাহ জাদরানকে ১২ গামে বোল্ড করে থিসারা। শেষ ওভারে যখন বল হাতে নেন থিসারা আফগানদের স্কোর তখন ২৪২/৭। ওভারের প্রথম বলেই গুলবাদিন নাইবের (৪) উইকেট নিয়ে শুরু, মাঝে দুই বলে আফতাব আলম এক ছক্কা ও সিঙ্গেল নিয়ে ৭ রান যুক্ত করেন।

এরপর ওভারের চতুর্থ বলে দারুণ এক ইয়র্কারে রশিদ খানের স্ট্যাম্প উড়িয়ে দেন থিসারা। শেষ বলে মুজিব উর রহমানকেও ইয়র্কারে পরাস্ত করে আফগানদের ২৪৯ রানেই থামিয়ে দেন থিসারা এবং সেই সঙ্গে ২০১২ সালের পর ওয়ানডেতে এক ইনিংসে আবারও ৫ উইকেট পাওয়ার কীর্তি গড়েন এই লঙ্কান অলরাউন্ডার।

জয়ের জন্য ২৫০ রান করতে হবে শ্রীলঙ্কাকে। তবে এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত নিজেদের ইনিংসের প্রথম ওভারেই শূন্য রানে উইকেট হারিয়েছে শ্রীলঙ্কা। ওপেনার কুশাল মেন্ডিসকে প্রথম ওভারের দ্বিতীয় বলেই লেগ বিফোরের ফাঁদে ফেলেছেন আফগান স্পিনার মুজিব উর রহমান।

২৫০ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে স্কোরবোর্ডে কোন রান যোগ না করেই ইনিংসের দ্বিতীয় বলে মুজিবুর রহমানের বলে শূন্য রানে প্যাভিলিয়নে ফেরেন কুশল মেন্ডিস। এরপরের ধনাঞ্জয় দে সিলভা এবং উপল থারাঙ্গা যোগ করেন ৫৪ রান। ধনাঞ্জয় ২৩ রান করে আউট হন। দলীয় ৮৬ রানের মাথায় কুশল পেরেরা এবং ৮৮ রানের মাথায় উপল থারাঙ্গা আউট হলে ম্যাচ থেকে ছিটকে পড়ে শ্রীলঙ্কা।

দলকে এদিনও বাঁচাতে পারেনি অধিনায়ক অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুস। ২২ রান করে মোহাম্মদ নাবির শিকার হন তিনি। শেষের দিকে থিসারা পেরেরা ২৮ রানে ৪১.১ ওভারে সবকটি উইকেট হারিয়ে ১৫৮ রান সংগ্রহ করে শ্রীলঙ্কা।

আরও পড়ুন

হ্যারি কেইন,এক মাসের জন্য মাঠের বাইরে

Syed Hasibul

হ্যামিল্টন মাসাকাদজা অাউট। জিম্বাবুয়ের তৃতীয় উইকেটের পতন

হ্যাপীর কারণে যেভাবে বদলে গেল রুবেলের ক্যারিয়ার!

হ্যাটট্রিক করে বিশ্বকাপের মিশন শুরু করলেন মেসি। দেখুন আজকের ম্যাচে মেসির হ্যাটট্রিকের ভিডিও

সোহাগ হোসেন

হ্যাটট্রিক করলো চেলসি

Syed Hasibul

হ্যাটট্রিক ৪ মেরে সেঞ্চুরির পথে সাকিব আল হাসান

Sheikh Anik

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

Privacy & Cookies Policy