খেলাধুলা

আবার ও বাংলাদেশকে ফাঁকি দিল আইসিসি

২০১৯ সাল থেকে ২০২৪ সালের মধ্যে বাংলাদেশ যেকয়টি আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলবে তার এফটিপি প্রকাশ করেছে আইসিসি। আর এই সূচি অনুযায়ী বাংলাদেশ ২০২৪ সাল পর্যন্ত টেস্ট, ওয়ানডে, টি-টোয়েন্টি মিলিয়ে মোট ১৫৭ টা ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ।

আসন্ন এই সময়ে এত পরিমান ম্যাচ শুধু বাংলাদেশ ওস্ট্রেলিয়া,ইংল্যান্ড ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ খেলার সুযোগ পাবে। কিন্তু তারপরও বাংলাদেশকে বড় একটা ফাঁকি দিয়েছে আইসিসি। আর এই ফাঁকিটা কি এবার সেটাই জেনেনিন…

বর্তমান ক্রিকেট বিশ্বের চার শক্তিশালি দল ভারত, অস্ট্রেলিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা ও ইংল্যান্ড। বিশ্বকাপ কিংবা এশিয়া কাপের ম্যাচগুলোর বাইরে এই দল গুলোর সাথে বাংলাদেশ ম্যাচ খেলবে মোট মাত্র ২৬টি। ৮টি টেস্ট সেটাও আবার ২০২০ সালে।আগের এফটিপি অনুসারে ইংল্যান্ডের সাথে টেস্ট খেলার কথা ছিল বাংলাদেশের কিন্তু সেটা আর হচ্ছেনা। তারমানে ২০২৩-এর মার্চের আগে অনার্স বোর্ডে অন্তত কোনো বাংলাদেশির নাম লেখা হচ্ছে না।

২০২২ সাল পর্যন্ত বাংলাদেশের ভাগে ২টা টেস্ট আর ৩ত ওয়ানডে রেখেছে বাংলাদেশ।তবে এদিক থেকে ভারত বেশ এগিয়ে ৩টি করে ওয়ানডে,টি-টুয়েন্টি খেলার পাশা পাশি ৪টি টেস্টে খেলবে তারা বাংলাদেশের সাথে।আর জিম্বাবুয়ের সাথে হবে ২৮টি ম্যাচ। আর ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাথে খেলবে ৩৩টি ম্যাচ। এছাড়া আফগানিস্থান ও আয়ারল্যান্ডের সাথে খেলবে ২৭টি ম্যাচ।

এই চার বছরে শ্রীলংকার সাথে মাত্র ১১বার দেখা হবে তাদের সাথে। আর পাকিস্থানের সাথে সব মিলিয়ে ১০টি ম্যাচ হবে বাংলাদেশের। আর ২০২৩ এর আগে অস্ট্রেলিয়ার সাথে বাংলাদেশের কোন সাক্ষাৎ হচ্ছেনা। সব মিলিয়েই বলতে গেলে এই দিন থেকে বাংলাদেশকে এক হাত দিয়েছে আইসিসি।

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

Privacy & Cookies Policy