খেলাধুলা

আসন্ন বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগে (বিসিএল) লিগে কোনো দলই আগ্রহ দেখায়নি মোহাম্মদ আশরাফুলকে নিয়ে

আসন্ন বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগে (বিসিএল) লিগে কোনো দলই আগ্রহ দেখায়নি মোহাম্মদ আশরাফুলকে নিয়ে। ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটের সপ্তম আসরে নতুনভাবে ড্রাফটে অন্তর্ভূক্ত হয়েছিলেন জাতীয় দলের সাবেক এই অধিনায়ক।

আগের ধারাবাহিকতায় বিসিএল এর সপ্তম আসরেও চারটি দল অংশ নিচ্ছে। জাতীয় লিগের সেরা পারফরমারদের মধ্য থেকে আগে ক্রিকেটার ভাগ করে দিত বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। কিন্তু লিগের অনেক সেরা ক্রিকেটার জাতীয় দলে দায়িত্ব পালনে ব্যস্ত রয়েছেন। এ অবস্থায় পূর্ববর্তী নিয়মে দল গঠন করা হলে অনেক ফ্র্যাঞ্চাইজিই তুলনামূলক দুর্বল থাকবে। যে কারণে ড্রাফটের নতুন নিয়ম করা হয়।

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) ২০১৩ আসরে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের সঙ্গে সম্পৃক্ততার অভিযোগে ৮ বছর নিষিদ্ধ ছিলেন আশরাফুল। পরে আপিলে নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ কমিয়ে পাঁচ বছর করা হয়। গত দুই বছর তাকে ঘরোয়া ক্রিকেটে খেলার অনুমতি দেয়া হয়। সেই হিসেবে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে খেলেছেন। যেখানে দুর্দান্ত পারফর্ম করেন তিনি।

ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে তিনি ১০ ইনিংসে ২৫৩ রান করার পাশাপাশি ১১ উইকেট নেন। এনসিএল এর শেষ ৬ ম্যাচেও তিনি ১১ ‍উইকেট নেন। তবে তার এই পারফরমেন্স ফ্র্যাঞ্চাইগুলোকে আকৃষ্ট করতে পারেনি।

বিসিএলে দল না পাওয়ায় হতাশ আশরাফুল। ক্রিকবাজকে তিনি বলেন, বিসিএল মিস করাটা সত্যি আমার জন্য হতাশার। সবশেষ জাতীয় ক্রিকেট লিগে আমি ভালো করতে পারিনি। মনে হয় এ কারণেই বিসিএল এ কেউ আমাকে নেয়নি।

বিসিএলে অংশ নিতে যাওয়া চারটি দল হলো- ইসলামী ব্যাংক ইস্ট জোন, ওয়ালটন সেন্ট্রাল জোন, প্রাইম ব্যাংক সাউথ জোন এবং বিসিবি নর্থ জোন।

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

Privacy & Cookies Policy