খেলাধুলা

সিরিজ শুরুর আগে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে প্রস্তুতি টা ভালই সারলেন সৌম্য সরকার

আগামী ২২ নভেম্বর চট্টগ্রামে জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে দুই টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচে মাঠে নামবে স্বাগতিক বাংলাদেশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ।সিরিজের আগে দুই দিনের প্রস্তুতি ম্যাচে গতকাল মাঠে নেমেছিল বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড একাদশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

যেখানে টসে জেতা ক্যারিবীয়রা প্রথম দিন শেষে ৮৬.৩ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে ৩০৩ রান করেছে। রুবেল হোসেনের নেতৃত্বে বাংলাদেশি বোলাররা উইকেট নিয়েছে ঠিকই, কিন্তু করতে হয়েছে বেশ সংগ্রাম।

চট্টগ্রামের এম এ আজিজ স্টেডিয়ামে শুরুটা অবশ্য দারুণ করে বিসিবি। প্রতিপক্ষের দলীয় ১১ রানে পেসার শফিউল ইসলাম বোল্ড করে মাঠ ছাড়া করান ওপেনার ও অধিনায়ক কার্লোস ব্র্যাথওয়েটকে। এরপর অবশ্য কাইরন পাওয়েল ও শাহি হোপ দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে ১৬৩ রান যোগ করেন। হোপ ১১২ বলে ১০টি চার ও ৩টি ছক্কায় ৮৮ রান করে স্বেচ্ছায় অবসরে যান।

৭২ করে ফজলে মাহমুদ রাব্বির বলে ফেরেন পাওয়েল। দিনের বাকিটা সময় অবশ্য স্বাগতিক বোলাররা দাপট দেখিয়েছে। সফরকারীদের আর কেউই হাফসেঞ্চুরি করতে পারেননি। টেস্টে ডাক পাওয়া নাঈম হাসান সর্বোচ্চ ২টি উইকেট লাভ করেন। এছাড়া শফিউল, রুবেল, ফজলে মাহমুদ ও সৌম্য সরকার একটি করে উইকেট পান।

জবাবে আজ দ্বিতীয় দিনের প্রথম থেকেই ব্যাটিং শুরু করে বিসিবি একাদশ। শুধু থেকে দুর্দান্ত ব্যাটিং করতে থাকেন সাদমান ইসলাম এবং সৌম্য সরকার। কিছুদিন ধরে দুর্দান্ত ফর্মে রয়েছেন সৌম্য। জাতীয় ক্রিকেট লীগে দুর্দান্ত ব্যাটিং এরপর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচে এবং তিনটি ওয়ানডে ম্যাচে তুলে নিয়েছিলেন সেঞ্চুরি।

আজ সেঞ্চুরি না পেলেও ৭৮ রান করে আউট হয়েছেন সৌম্য। ওপেনিং জুটিতে সাদমান ইসলাম কে সাথে নিয়ে ১৩৬ রানের পার্টনারশিপ গড়েন সৌম্য সরকার।

এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত ১ উইকেটে ১৪৬ রান সংগ্রহ করেছে বিসিবি একাদশ। নাজমুল হাসান শান্ত ৫ এবং সাদমান ইসলাম ৫২ রান করে অপরাজিত রয়েছেন।