14.6 C
New York
May 25, 2020
বাংলাদেশ

অসহায়দের জন্য ত্রাণ ফিরিয়ে দিলেন দুই প্রতিবন্ধী

করোনাভাইরাসের কারণে কর্মহীন হয়ে অসহায় দিন কাটাচ্ছেন খেটে খাওয়া নিম্ন আয়ের মানুষ। অনাহারে-অর্ধাহারে থাকা খেটে খাওয়া মানুষগুলো খাবারের দাবিতে রাস্তায়ও নামছেন। এমন সংকটকালে গাইবান্ধার সাঘাটা উপজেলার দুই প্রতিবন্ধী ত্রাণ ফিরিয়ে দিয়েছেন। রাগ করে নয়, তাদের চেয়েও অসহায়দের দেয়ার জন্য ত্রাণ ফিরিয়ে দিয়েছেন ওই দুই প্রতিবন্ধী।

খাদ্য সহায়তা হিসেবে বৃহস্পতিবার (১৪ মে) ১০ কেজি চাল , দুই কেজি ডাল, এক কেজি লবণ হাতে পাওয়ার পর তা না নিয়ে অন্যের হাতে তুলে দিয়ে মানববিকতার দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন তারা।

সাঘাটা উপজেলার শিমুল তাইড় গ্রামের দৃষ্টি প্রতিবন্ধী মোফাজ্জল হোসেন। প্রতিদিন সকালে বোনারপাড়া থেকে সান্তাহারগামী লোকাল ট্রেনে ভিক্ষা করে যা আয় করেন তা দিয়েই চলে সংসার। কখনও কখনও সময় মতো স্টেশনে গিয়ে ট্রেন না পাওয়ায় অনাহারে থাকতে হয়। সরকারের খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির কার্ড পাওয়ায় সেই কষ্ট অনেকটা লাঘব হয়েছে তার। নির্দিষ্ট সময়ে চাল খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির চাল পাওয়ায় এখন সংসাবে শান্তি এসেছে।

গাইবান্ধায় লকডাউন চলায় নেই ভিক্ষা করার সুযোগ। তবুও মনে অনেক আনন্দ দৃষ্টি প্রতিবন্ধী মোফাজ্জল হোসেনের। কারণ কয়েকদিন আগেই খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির ৩০ কেজি চাল পেয়েছেন। যা দিয়ে মাসখানেক চলবে তার।

বৃহস্পতিবার বিকেলে জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার অ্যাডভোকেট ফজলে রাব্বী মিয়ার পক্ষ থেকে সাঘাটা উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নাছিরুল আলাম স্বপন তার হাতে ত্রাণ সামগ্রী (১০ কেজি চাল , দুই কেজি ডাল, এক কেজি লবণ ) তুলে দেন। কিন্তু তিনি ত্রাণ সামগ্রী গ্রহণ করেননি।

দৃষ্টি প্রতিবন্ধী মোফাজ্জল হোসেনে বলেন, সরকার আমাকে ১০ টাকা কেজি মূল্যের ৩০ কেজি চাল দিয়েছে। তা দিয়ে আমার মাসখানেক চলবে। আমি চাই করোনাভাইরাসের কারণে আমার চেয়ে যে বেশি অসহায় সেই এই ত্রাণ গ্রহণ করুক।

Related posts

কুমিল্লায় করোনায় আক্রান্ত বেড়ে ১১৬

দেশের সব কারাগারে ‘ভাইরাস জিরো’ স্প্রে

করোনা মোকাবিলায় বাংলাদেশকে ২২ মিলিয়ন ডলার দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র

Shohag